ঢাকা, বৃহস্পতিবার, আগস্ট ২২ ২০১৯,


শিরোনাম
যতদিন বেঁচে থাকি আপনাদের সেবা করে যাবো: ডা.এম,এ তাহের     বঙ্গবন্ধু পরিষদ জাপান শাখার কমিটি অনুমোদিত     কচুয়ায় শিলাস্থান একতা সমাজ সেবা ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে পবিত্র কোরআন শরীফ বিতরন     বঙ্গবন্ধু ছাত্র একতা পরিষদ:চাঁদপুর জেলা কমিটি গঠন-সভাপতি আরফাদ আহমেদ হিমেল,সম্পাদক এস,এম, সারোয়ার     কচুয়ায় বিশিষ্ট সমাজ সেবক মরহুম শামছুল হক প্রধানের মাগফিরাতের জন্য দোয়া কামনা     দারোগার প্রতি অভিমান, দারোগার প্রতি ভালোবাসার টান     নতুন আশার উপদেষ্টা বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী মো: নুরুল ইসলাম মাষ্টার কে সাংবাদিক দের পক্ষ থেকে অভিনন্দন     নতুন আশার উপদেষ্টা সম্পাদক নির্বাচিত মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম মাষ্টার     পহেলা বৈশাখের ইতিহাস :জুয়েল তরফদার     বঙ্গবন্ধু ছাত্র একতা পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটি গঠন    

যৌন কেলেঙ্কারির দায়ে বরখাস্ত

demo | ০১:৫৭ মিঃ, নভেম্বর ৬, ২০১৭



হলিউড এখন তারকাদের যৌন কেলেঙ্কারির বিতর্কে উত্তপ্ত। ভুক্তভোগীরা আগের চেয়ে অনেক বেশি সোচ্চার ও প্রতিবাদী। বাকিরাও সচেতন। যৌন হেনস্তার অভিযোগ ওঠায় সম্প্রতি ভিডিও স্ট্রিমিং নেটওয়ার্ক নেটফ্লিক্সে প্রচারিত ‘হাউস অব কার্ড’ সিরিজ থেকে অভিনেতা কেভিন স্পেসিকে বাদ দেওয়া হয়েছে। তা ছাড়া এই তারকা অভিনীত সিনেমাও নেটফ্লিক্সে মুক্তি না দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। ‘গোর’ নামের ওই ছবির শুটিং শেষ। এখন নির্মাণ-পরবর্তী কাজ চলছে।

‘হাউস অব কার্ড’ সিরিজে কেভিন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ফ্র্যাংক আন্ডারউডের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। কেভিনের বিরুদ্ধে একের পর এক যৌন হয়রানির খবর প্রকাশিত হওয়ার পর নেটফ্লিক্স কর্তৃপক্ষ গত মঙ্গলবার তাঁকে বরখাস্ত করেছে। তাদের মতে, কেভিন পুরো প্রোডাকশনকেই বিষাক্ত করে তুলেছে। ভবিষ্যতেও নেটফ্লিক্সের কোনো প্রোডাকশনে এই তারকাকে না নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে তারা।

গত মাসে একাধিক পুরুষ অস্কারজয়ী তারকা কেভিন স্পেসির বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ এনেছেন। ১৯৮৬ সালে ১৪ বছর বয়সী ‘স্টার ট্রেক: ডিসকভারি’ সিনেমার শিশু তারকা অ্যান্থনি র‍্যাপকে পার্টিতে ডেকে যৌন নির্যাতন করেছিলেন কেভিন স্পেসি। এ অভিযোগ ওঠার পর অবশ্য ক্ষমা চেয়েছেন কেভিন। এরপর আরও তিনজন পুরুষ এই তারকার নামে যৌন হেনস্তার অভিযোগ আনেন। কেভিনের বিরুদ্ধে এ ধরনের অভিযোগ করেছেন মার্কিন চলচ্চিত্র পরিচালক টনি মন্টানা। তিনি বলেছেন, ২০০৩ সালে লস অ্যাঞ্জেলেসের একটি পানশালায় কেভিনের নির্যাতনের শিকার হন তিনি। আর এ কারণে প্রায় ছয় মাস পোস্ট-ট্রমাটিক স্ট্রেস ডিসঅর্ডারে (পিটিএসডি) ভুগতে হয়েছে তাঁকে।

অ্যান্থনি র‍্যাপকে যৌন নির্যাতনের ঘটনা স্বীকার করে মাফ চাওয়ার পর এখন পর্যন্ত কেভিনের বিরুদ্ধে কোনো আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। সম্প্রতি এই তারকার মুখপাত্র জানান, কেভিন তাঁর চিকিৎসা ও সংশোধনের জন্য সময় নিতে চান। এদিকে লন্ডন পুলিশ ২০০৮ সালে একটি যৌন হয়রানির মামলা নিয়ে তদন্ত চালাচ্ছে। এর সঙ্গে কেভিনের কোনো যোগসূত্র আছে কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। যুক্তরাজ্যের গণমাধ্যমে গত শুক্রবার এই খবর প্রকাশিত হয়। যদিও পুলিশ এখনো কেভিন স্পেসিকে এই মামলায় অভিযুক্ত করেনি। কিন্তু এই অভিনেতার যৌন কেলেঙ্কারির ঘটনা সামনে আসার পর পুলিশ মামলাটি নিয়ে নতুনভাবে তদন্ত শুরু করেছে।

লন্ডনের ওল্ড ভিক থিয়েটারে ১১ বছর শিল্পনির্দেশকের দায়িত্বে ছিলেন কেভিন স্পেসি। ২০১৫ সালে তিনি এই চাকরি ছেড়ে দেন। সেই থিয়েটারের এক কর্মী জানান, সেখানেও কেভিন অনেক ছেলের সঙ্গে অশোভন যৌন আচরণ করেছেন। তিনি আরও বলেন, ‘সেখানে ৩০ বছরের নিচে যাদের বয়স, কেবল সেসব ছেলেকে নেওয়া হতো। যেন কেভিন চাইলেই বাচ্চা ছেলেদের সঙ্গে যা খুশি তাই করতে পারেন।’

২০০০ সালে ‘আমেরিকান বিউটি’ ছবির জন্য সেরা অভিনেতার অস্কার জিতেছিলেন কেভিন। ৫৮ বছর বয়সী এই অভিনেতার যৌন কেলেঙ্কারির ঘটনাগুলো সামনে আসার পর তাঁর সমকামিতা বিষয়টি প্রকাশ পায়। দ্য গার্ডিয়ান





Designed & Developed by TechSolutions BD